গরমে সুস্থ থাকার উপায়

এপ্রিল মাস! প্রচন্ড গরমে যে কোনো মুহূর্তে যে কেউ পড়তে পারেন অসুস্থতায়।এই তীব্র গরমে নিজেকে সুস্থ রাখা জরুরি। গরমে সুস্থ থাকতে বেশ কিছু পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁরা বলছেন, তীব্র গরমে স্বাস্থ্যের ওপরে যে প্রভাব পড়ে, এতে পানিশূন্যতা দেখা দিতে পারে। এ ছাড়া গরমের কারনে হিটস্ট্রোকের মতো সমস্যাও দেখা দিতে পারে। আবহাওয়ার তাপমাত্রা বাড়ার সাথে সাথে মানবদেহের তাপমাত্রাও বাড়তে থাকে। তাই এসময়ে কেউ যদি নিজের দেহের তাপমাত্রা স্বাভাবিক রাখার কৌশল আয়ত্ত করতে পারেন তাহলেই সে  যতটা সম্ভব অসুস্থতার হাত থেকে রেহাই পেতে পারেন।

গরমে সুস্থ থাকার উপায়

গরমে সুস্থ থাকার উপায়

 

এই গরমে নিজেকে সুস্থ রাখার কৌশল গুলো হলো

১।প্রচুর পানি পান করাঃ আপনার তৃষ্ণা না লাগলেও প্রচুর পরিমাণে পানি পান করুন।

২।চা এবং কফিসহ অ্যালকোহলযুক্ত ও  গরম বা মিষ্টিজাতীয় পানীয় এড়িয়ে চলুন।

৩।আপনি যদি বাইরে যান, আপনার সাথে এক বোতল পানি নিয়ে যান।

৪।কোল্ড ড্রিঙ্কস পান করুন এবং হাল্কা ঠান্ডা খাবার যেমন সালাদ এবং ফল খান।

৫।হালকা রঙের বা সুতির পোশাক পরুন।

৬।সূর্য থেকে দূরে থাকুন।খুব প্রয়োজন না হলে বাইরে যাবেন না।যদি বাইরে যেতেই হয় সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন মাথায় ক্যাপ/হ্যাট পরতে পারেন।

৭।আপনার বাহু বা ঘাড়ে ভেজা তোয়ালে বা ঠান্ডা প্যাকগুলি রাখুন বা আপনার পা ঠান্ডা জলে রাখুন।

৮।ঠান্ডা পানিতে গোসল করুন।

৯।শারীরিক কাজ থেকে বিরত থাকুন  বা  খুব সকালে কাজগুলো শেষ করুন।

১০।শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা থাকলে এটি ব্যবহার করুন।

১১। গরমে প্রচুর সবজি খেতে পারেন। শসা, টমেটো, ক্যাপসিকাম, লাউ, শাক-পাতা আপনার খাদ্যতালিকায় রাখুন।

১২।গরমে ঘামের সঙ্গে শরীর থেকে অতিরিক্ত লবণপানি বেরিয়ে যায়। তাই শরীরে লবণপানির ঘাতটি মেটাতে খাবার স্যালাইন খাওয়া যেতে পারে। খাবার স্যালাইন শরীরের পানি স্বল্পতা দূর করে।

১৩।তরল খাবার বেশি খান বিভিন্ন মাংস, ডিম ও চর্বি জাতীয় খাবারের কথা ভুলে যান। তরল খান বেশি করে; দেখবেন শরীর সতেজ লাগছে বেশ। স্যুপ, ফলের রস খান।ভিটামিন ‘সি’ সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে প্রচুর পরিমাণে।

১৪।গরমের দিনে খাবার সামান্য এদিক-ওদিক হলেই পেটব্যথা হয়, পেট কামড়ায়, হজমে গোলমাল দেখা দেয়। বাইরের খাবার খাওয়ার আগে সচেতন থাকুন।ফাস্ট ফুড এড়িয়ে চলুন।

১৫।অতিরিক্ত গরমে অনেকেরই অ্যাজমার সমস্যা তীব্র হয়। এ অবস্থায় অ্যাজমা রোগীরা যাতে গরমের অস্বস্তিকর পরিবেশের মুখোমুখি না হন, সে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। চিকিৎসকের দেয়া চিকিৎসা নিয়মিতভাবে গ্রহণ করতে হবে; মেনে চলতে হবে উপদেশগুলো।

১৬।সিগারেটের অভ্যাস থাকলে ত্যাগ করুন সেটা। ধূমপানে শরীর আরো গরম হয়ে উঠবে। বাড়বে ত্বকের শুষ্কতা। বরং তার বদলে খান একটি করে ভিটামিন সি ট্যাবলেট। সজীব লাগবে নিজেকে।


গরমে সুস্থ থাকার উপায়,গরমে সুস্থ থাকার উপায় কি,গরম পানি খাওয়ার উপকারিতা,গরম জলের উপকারিতা,গরম পানির উপকারিতা,kfplanet.com,

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *