Skip to content

পোল্যান্ড জব ভিসা ২০২৩ : পোল্যান্ড কাজের ভিসার আদ্যোপান্ত

    মধ্য ইউরোপের একটি সুন্দর ও আকর্ষণীয় দেশ পোল্যান্ড। ইউরোপের প্রতেক টি দেশই অপরূপ রুপে সাজানো থাকে, পোল্যান্ড ও তার ব্যাতিক্রম নয়। আজ আমরা পোল্যান্ডের জব ভিসা সম্পর্কে আলোচনা করব। ইউরোপের ষষ্ঠ জনবহুল দেশ। পোল্যান্ডের রাজধানী ওয়ারশ’র ,এদেশে অনেক শীত পড়ে তবুও দেশ্তি অনেক সবুজ।

    পছন্দের এলাকায় পার্টটাইম/ফুলটাইম চাকরি খুঁজে পেতে এই অ্যাপটি ইন্সটল করে এখনই আবেদন করুন

    পোল্যান্ডের আয়তন ৩১২৬৭৯ বর্গ কিলোমিটার। ইউরোপীয় ইউনিয়নের মধ্যে পোল্যান্ড ষষ্ঠ জনবহুল দেশ। ইউরোপীয় দেশ গুলোর পোল্যান্ডে জব ভিসা তুলনা মূলক একটু সহজ ,সেজন্য বর্তমানে বাংলাদেশ থেকে পোল্যান্ডে যাওয়ার প্রবণতা দিন দিন বাড়ছে। আজ  কিভাবে খুব সহজে পোল্যান্ডের জব ভিসা আবেদন করতে হয় সেই দিক গুলো আপনাদের সামনে সুন্দর ভাবে তুলে ধরব।

    পোল্যান্ড জব ভিসা ২০২৩

    পোল্যান্ড ভিসার নিয়মঃ আপনি এই ভিসার মাধ্যামে পোল্যান্ডে বসবাস করতে পারবেন ।আপনাকে প্রথমে দূতাবাস থেকে ডি ভিসা দেওয়া হবে, যার মেয়াদ সাধারণত এক বছর দেওয়া হয়। তবে, ভিসার মেয়াদ শেষ হলে আপনি ১-৪ বছর বা তার বেশি ভিসা রিনিউ করতে পারবেন। এই সময়ের মধ্যে আপনি সেখানে ব্যাবসা শুরু করতে পারবেন, পরিবারের সদস্য নিতে পারবেন এবং সেখানে স্থায়ী ভাবে বসবাস করতে পারবেন।

    পোল্যান্ড কাজের ভিসা হতে কত সময় লাগে?  ওয়ার্ক পারমিট ভিসা ইস্যু হতে ৬০ দিন পর্যন্ত সময় লাগতে পারে , দুতাবাসের সময় অনুসারে। 

    আবেদনের যোগ্যতাঃ 

    1.  অবশ্যই উচ্চ মাধ্যমিক পাশ হতে হবে সাথে ১ বছরের কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে
    2.  ইংরেজিতে কথা বলার অভ্যাস থাকতে হবে
    3. বয়স ১৮ বছরের বেশি হতে হবে
    4.  উদ্যমী, স্মার্ট, কাজ করতে আগ্রহী এবং চরিত্রভাবে বিশ্বস্ত

    ভিসা করতে গেলে যে সমস্ত কাগজ পত্র অ্যাম্বাসিতে সাবমিট করতে হবেঃ

    • *Passport
    • *Education Certificates + Marksheet (attested)
    • *Photo (35mm x 45mm)
    • *Training / Workshop certificates
    • *Bank statement (< 3.5 lakh)
    • *Employment details (Experience Letter, Employment Certificate, Office ID, Salary cert., leave letter)
    • *Police clearance
    • *Insurance
    • *Birth Certificate/voter ID
    • *India Visa
    • * Family details

    ওয়াক ভিসার আবেদনের নিয়ম 

    1. সমস্ত নথিপত্র জমা করতে হবে.
    2. ৬০ দিনের মধ্যে আপনার কাজের অনুমতি ইস্যু হবে
    3.  অ্যাম্বাসিতে ভিসার জন্য সব কাগজ পত্র জমা করতে হবে
    4. বাংলাদেশ থেকে ফ্লাইট টিকিট

    পোল্যান্ডে চাকরির প্রকারভেদ

    পোল্যান্ডে বিভিন্ন প্রকার চাকরি থাকে, সবাই সব ধরনের চাকরি পায় না,আপনার শিক্ষাগত ও কাজের অভিজ্ঞতা অনুসারে চাকরি পাবেন। চাকরির কিছু প্রকার নিচে দেওয়া হল

    • বিজনেস ম্যানেজমেন্ট/ মার্কেটিং অফিসার/ অ্যাকাউন্ট অফিসার
    • বৈদ্যুতিক ইঞ্জিনিয়ার/ সিভিল ইঞ্জিনিয়ার/  ইলেক্ট্রনিক মেকানিক
    • মেডিকেল / মেডিসিন স্পেশালিস্ট
    • আইটি , ফ্যাশন ডিজাইন
    • হোটেল / রেষ্টুরেন্ট সুপারভাইজার / অফিসার

    পোল্যান্ড এর সরকারি সাইট থেকে পোল্যান্ড যাওয়ার নিয়ম,বিস্তারিত পড়তে পারেনঃ https://www.gov.pl/web/diplomacy/visas

    পোল্যান্ড জব ভিসা ২০২৩, poland job visa for bangladeshi,পোল্যান্ড ওয়ার্ক পারমিট ভিসা, পোল্যান্ড কাজের ভিসা, পোল্যান্ড কাজের ভিসা 2023,পোল্যান্ড যাওয়ার নিয়ম,পোল্যান্ড এ জব ভিসা পাওয়ার নিয়ম

    38 thoughts on “পোল্যান্ড জব ভিসা ২০২৩ : পোল্যান্ড কাজের ভিসার আদ্যোপান্ত”

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    বিজ্ঞাপন দিতে চাইলে যোগাযোগ করতে পারেনঃ kfsoft@yahoo.com যে কোন প্রয়োজনেঃ kfplanetbd@gmail.com